ভারত বনাম পাকিস্তান ম্যাচ: পরিসংখ্যানে এগিয়ে যারা


দুই দলের লড়াই মানেই ভিন্ন এক রোমাঞ্চ। দর্শকদের আগ্রহও থাকে তুঙ্গে। ভারত-পাকিস্তান এখন আর মুখোমুখি হয় না দ্বিপক্ষীয় সিরিজে। এজন্য টুর্নামেন্টই ভরসা হয় দর্শকদের জন্য। এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে রোববার মাঠে নামবে ভারত ও পাকিস্তান। এ ম্যাচের আগে পরিসংখ্যানের পাতায় কে কোথায় এগিয়ে সেটি দেখে নেওয়া যাক।

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ভারত-পাকিস্তান এখন অবধি সবমিলিয়ে ১২বার মুখোমুখি হয়েছে। এর মধ্যে ৮টিতেই জিতেছে ভারত, পাকিস্তান জিতেছে তিনবার। একটি ম্যাচ টাই হয়েছিল, যেটি ভারত বোল-আউটে জিতেছিল। শেষ পাঁচ ম্যাচেও তিন জয় ভারতের।

২০০৭ সালে প্রথমবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে একে-অপরের মুখোমুখি হয় তারা। এরপর সবমিলিয়ে সাতবার বিশ্বকাপে মাঠে নেমে পাঁচবারই ভারত জিতেছে। পাকিস্তানের জয় একটিতে। একটি ম্যাচ টাই হওয়ার পর বোল আউটে জিতেছে ভারত।

২০১২ সালে আহমেদাবাদে ৫ উইকেটে ১৯২ রান করেছিল ভারত, সেটিই পাকিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ সংগ্রহ তাদের। ২০২২ সালে দুবাইয়ে ৫ উইকেটে ১৮২ পাকিস্তানের বিপক্ষে ভারতের সর্বোচ্চ। ২০১৬ সালে মিরপুরে ভারতের বিপক্ষে পাকিস্তান সর্বনিম্ন ৮৩ রানে অলআউট হয়। ২০১২ সালে ৯ উইকেটে ১৩৩ রান ছিল ভারতের সর্বনিম্ন।

ভারতের হয়ে পাকিস্তানের বিপক্ষে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রান বিরাট কোহলির। ১০ ম্যাচে খেলে দলটির বিপক্ষে ৮১.৩৩ গড়ে ৪৮২ রান করেছেন তিনি। দুই নম্বরে থাকা যুবরাজ ৮ ম্যাচে ১৫৫ রান করেছেন। তিন নম্বরে আছেন ৫ ম্যাচে ১৩৯ রান করা গৌতম গম্ভীর।

ভারতের বিপক্ষে পাকিস্তানের হয়ে সবচেয়ে বেশি রান মোহাম্মদ রিজওয়ানের। ৪ ম্যাচ খেলে তিনি ৬৫.৬৬ গড়ে ১৯৭ রান করেছেন। দুইয়ে থাকা শোয়েব মালিকের ব্যাট থেকে ৯ ম্যাচে এসেছে ১৬৪ রান। ৮ ম্যাচে ১৫৬ রান করে তিন নম্বরে আছেন মোহাম্মদ হাফিজ।

পাকিস্তানের বিপক্ষে ভারতের সবচেয়ে সফল বোলার ভুবনেশ্বর কুমার। ৭টি ম্যাচ খেলে ৭.২৬ গড়ে ওভারপ্রতি রান দিয়ে ১১টি উইকেট নিয়েছেন তিনি। পাকিস্তানের হয়ে সবচেয়ে বেশি উইকেট উমর গুলের। তিনি ৬ ম্যাচে ৮.২৭ ইকোনমি রেটে ১১টি উইকেট নিয়েছেন।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *